fbpx

ডায়া গোল্ড জুয়েলারী

অবস্থান

বনানীর জি ব্লকের  ১১ নম্বর সড়কে যে ভবনে বাটার শোরুম অবস্থিত সেই ভবনের তয় তলায় ডায়া গোল্ডের শোরুম অবস্থিত।

 

ঠিকানা

বাড়ী# ৩২, রোড# ১১, ব্লক# জি, ২য় তলা, চান্দিওয়ালা ম্যানশন, বনানী, ঢাকা।
ফোন- ৮৮০-২-৯৮৮৮৫৭৫, ৮৮৩৭০৪৭
মোবাইল- ০১৮১৯-২১৬৪৯৪
ই-মেইল- info@diagoldjewelry.com

সময়সূচী

  • প্রতিদিন সকাল ৯ টা থেকে রাত ১০ টা পর্যন্ত খোলা থাকে
  • সাপ্তাহিক বন্ধ শুক্রবার।

সোনার মূল্য তালিকা (মূল্য পরিবর্তনশীল)

  • এখানে ১৮,২১ এবং ২২ ক্যারেটের স্বর্ণের গহনা পাওয়া যায়।
  • ১৮ ক্যারেট স্বর্ণ- ৪৫,৯৫৬ টাকা।
  • ২১ ক্যারেট স্বর্ণ- ৫৩,৫৯৬ টাকা।
  • ২২ ক্যারেট স্বর্ণ- ৫৬,১০৪ টাকা।

সেবা সমূহ

  • এখানে স্বর্ণ, হীরা, হোয়াইট গোল্ড এবং স্টোন পাওয়া যায়।
  • স্বর্ণ পরিমাপের ক্ষেত্রে সনাতন পাল্লা ও আধুনিক ডিজিটাল ওজন যন্ত্র ব্যবহার করা হয়।
  • স্বর্ণের মান যাচাইয়ের জন্য আন্তর্জাতিক মানসম্মত ডিজিটাল মেশিন ব্যবহার করা হয়।
  • স্বর্ণ পরীক্ষার জন্য সর্বোচ্চ ১৫০ টাকা চার্জ প্রদান করতে হয় না।
  • স্বর্ণের দাম ও মজুরী সহ মোট দামের ৫০ % টাকা অগ্রীম প্রদান করতে হয়।
  • পুরনো অলংকার স্বর্ণের বাজার মূল্যের চেয়ে ৩০% কম দামে ক্রয় করে থাকে প্রতিষ্ঠানটি।
  • অলংকার মেরামত ও ওয়াশ করতে সর্বোচ্চ ২৫০ টাকা সার্ভিস চার্জ প্রদান করতে হয়।
  • ক্রেতার সরবরাহকৃত স্বর্ণের ক্ষেত্রে তার ওজন পরিমান ও মান যাচাই সাপেক্ষে ক্রেতাকে জানিয়ে বিভিন্ন ডিজাইনের অলংকার তৈরি করা হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে মজুরী চার্জ ৫,০০০ টাকা।
  • হীরা পরীক্ষার করার জন্য আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল মেশিন ব্যবহার করা হয়।
  • গিফট বক্স ও রেপিং করতে সর্বোচ্চ ৩০০ টাকা প্রদান করতে হয়।

পরিবর্তনের শর্তাবলী

  • পন্য কেনার পর পছন্দ না হলে বা কোন সমস্যার কারণে তা পরিবর্তন বা ফেরত দিয়ে অন্য ডিজাইনের একই মূল্যের অলংকার নেওয়ার ব্যবস্থা রয়েছে।
  • টাকা ফেরত দেওয়া হয় না।

বিল পরিশোধ

  • ক্যাশ ও কার্ডের মাধ্যমে বিল পরিশোধের ব্যবস্থা রয়েছে
  • ভিসা কার্ড, মাষ্টার কার্ড এবং সকল ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ড গ্রহণযোগ্য

বিবিধ

  • এখানে স্বর্ণের অলংকার বন্ধক রাখার ব্যবস্থা রয়েছে। আলোচনা সাপেক্ষে দাম নির্ধারিত হয়ে থাকে।
  • শো-রুমটি শীতাতাপ নিয়ন্ত্রিত
  • নিজস্ব জেনারেটরের মাধ্যমে এসি এবং বিদ্যুৎ ব্যবস্থা সচল রাখা হয়
  • ক্রেতাদের বসার জন্য উন্নত ফোমের চেয়ার ও সোফা রয়েছে

আমিন জুয়েলার্স

ঠিকানা, যোগাযোগ, অবস্থান ও অন্যান্য শাখা:

৭৩, বায়তুল মোকাররম মসজিদ মার্কেট (নীচতলা), ঢাকা।
ফোন: ৯৫৫৫৮৭৩-৪, ৯৫৫১৩৯০।

পল্টন মোড় থেকে পূর্ব দিকে এবং দৈনিক বাংলা মোড় থেকে পশ্চিম দিকে বায়তুল মোকাররম মসজিদের উত্তর গেট সংলগ্ন ওভারব্রীজ এর সন্নিকটে ৩টি দোকান পড়েই এই জুয়েলার্সটি অবস্থিত।এই জুয়েলার্স শপটির প্রধান শাখা ছাড়া আরও ৪টি শাখা রয়েছে। শাখাগুলোর ঠিকানা ও ফোন নম্বর নিচে দেওয়া হলো।

১।বায়তুল মোকাররম মার্কেট শাখা  ২ঃ-  ৭৭, বায়তুল মোকাররম মসজিদ মার্কেট (নীচতলা) ঢাকা।
২।গুলশান শাখাঃ এফ-২৭, ডি.সি.সি মার্কেট (১ম তলা), নর্থ গুলশান, সার্কেল-২, গুলশান, ঢাকা -১২১২।
ফোন: ৯৮৮৪১৯৭, ৮৮১২৩৪৭
ই-মেইল: aminjewellersltd@yahoo.com

৩।নিউ মার্কেট শাখাঃ    নিউ মার্কেট, ঢাকা।ফোন: ৮৬১৪১৩৭, ৮৬১৯৭২৩, ৯৬৬৯৯২৯
৪।বসুন্ধরা সিটি শাখাঃ  বসুন্ধরা সিটি শপিং কমপ্লেক্স, লেভেল – ৫, ঢাকা।
ফোন: ৮১৫৭৩২৮, ৮১৫৮১০২।

 

অন্যান্য অলংকার

সকল শ্রেণীর গ্রাহকের সামর্থ ও পছন্দের কথা বিবেচনা করে এই জুয়েলার্স শপটিতে সোনা ও হীরার পাশাপাশি রূপা ও কালার স্টোন (রত্ন পাথর) এর অলংকারও তৈরি করা হয়। রূপার অলংকার গুলোর মধ্যে রয়েছে রিং, ব্যাসলেট, নুপুর, কানের দুল, নাকফুল ইত্যাদি। আর স্টোন (রত্ন পাথর) এর তৈরি অলংকারের মধ্যে রয়েছে নাকফুল, রিং, কানের দুল, হার।

অলংকার ফেরৎ, পরিবর্তন, পুন: ক্রয় ও বন্ধক

এই জুয়েলার্স শপ থেকে ক্রয়কৃত অলংকার যদি কোন কারণে ফেরৎ বা পরিবর্তনের প্রয়োজন হয় তাহলে সে ব্যবস্থাও রয়েছে। ফেরৎ এর ক্ষেত্রে ক্রয়মূল্যের ২০% টাকা কেটে রাখা হয় এবং পরিবর্তনের ক্ষেত্রে ক্রয়মূল্যের ১০% টাকা কেটে রাখা হয়। এছাড়া এখানে পুরাতন সোনা ক্রয়ের ব্যবস্থা রয়েছে। সাধারণত সোনার মানের ভিত্তিতে প্রতি ভরি সোনা ২৫,০০০ টাকা থেকে ৩৫,০০০ টাকায় ক্রয় করা হয়। এখানে সোনা বন্ধকের কোন ব্যবস্থা নেই।

 

অলংকার মেরামত ও ওয়াশ ব্যবস্থা

এখানে অলংকার ক্রয়, বিক্রয় ও তৈরির পাশাপাশি সকল প্রকার অলংকার মেরামত ও ওয়াশ করার ব্যবস্থা রয়েছে। মেরামতের চার্জ আলোচনা সাপেক্ষে নির্ধারিত হয়ে থাকে এবং অলংকার ওয়াশ করার জন্য ভরি প্রতি ৩০০ টাকা চার্জ প্রদান করতে হয়।

বিল পরিশোধ প্রক্রিয়া

এই জুয়েলার্স শপটিতে ক্যাশের পাশাপাশি ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে বিল পরিশোধের ব্যবস্থা রয়েছে। তবে সেক্ষেত্রে শুধুমাত্র ভিসা কার্ড গ্রহণযোগ্য।

খোলা-বন্ধের সময়সূচী

এই জুয়েলার্স শপটি শুক্রবার সাপ্তাহিক বন্ধ থাকে। সপ্তাহের অন্যান্য দিন সকাল ১০.০০ টা থেকে সন্ধ্যা ৭.০০ টা পর্যন্ত খোলা থাকে।

গীতাঞ্জলী জুয়েলার্স

ঠিকানা

বাড়ি# ১৫, রোড# ১০৩, পিংক সিটি শপিং কমপ্লেক্স, দোকান# ২২ (৩য় তলা), গুলশান ২, ঢাকা-১২১২।
মোবাইল- ০১৭২০-৫৫৩৫৯১, ০১৭১৬-৮৫৪০৯০
ফ্যাক্স- ০২-৮৮৩৭০৩১, ০৬৬৬২৬২২৬৮৫
ই-মেইল- gitanjali.bb09@yahoo.com

শাখা

ফ্যাশন প্যারাডাইস, জসীম উদ্দিন রোড, সেক্টর# ৩, উত্তরা
মোবাইল-০১৭১৫-৫২১৭৩৪

সময়সূচী

  • প্রতিদিন সকাল ১০ টা থেকে রাত ৮ টা পর্যন্ত খোলা থাকে
  • রবিবার পূর্ন দিবস এবং সোমবার দুপুর ২টা পর্যন্ত বন্ধ থাকে

সোনার মূল্য তালিকা (মূল্য পরিবর্তনশীল)

  • এখানে ১৮,২১ এবং ২২ ক্যারেটের স্বর্ণের গহনা পাওয়া যায়। এছাড়া এখানে সনাতনী হিসেবেও স্বর্ণ পাওয়া যায়।
  • ১৮ ক্যারেট স্বর্ণ- ৪৫,৯৫১ টাকা।
  • ২১ ক্যারেট স্বর্ণ- ৫৩,৫৯৪ টাকা।
  • ২২ ক্যারেট স্বর্ণ- ৫৬,০০০ টাকা।

সেবা সমূহ

  • স্বর্ণের মান যাচাইয়ের জন্য আন্তর্জাতিক মানসম্মত ডিজিটাল মেশিন ব্যবহার করা হয়।
  • স্বর্ণ পরীক্ষার জন্য আলাদা কোন চার্জ প্রদান করতে হয় না।
  • স্বর্ণের দাম ও মজুরী অগ্রীম প্রদান সাপেক্ষে অলংকার ৭ দিনের মধ্যে ডেলিভারী প্রদান করা হয়ে থাকে।
  • ক্রেতার সরবরাহকৃত স্বর্ণের ক্ষেত্রে তার ওজন পরিমান ও মান যাচাই সাপেক্ষে ক্রেতাকে জানিয়ে বিভিন্ন ডিজাইনের অলংকার তৈরি করা হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে মজুরী চার্জ ৫,০০০ টাকা।
  • হীরা পরীক্ষার করার জন্য আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল মেশিন ব্যবহার করা হয়।
  • হীরার অলংকারের হীরা ছাড়া শুধুমাত্র স্বর্ণ ব্যবহার করা হয়।

পরিবর্তনের শর্তাবলী

  • পন্য কেনার পর পছন্দ না হলে বা কোন সমস্যার কারণে তা পরিবর্তন বা ফেরত দিয়ে অন্য ডিজাইনের একই মূল্যের অলংকার নেওয়ার ব্যবস্থা রয়েছে।
  • টাকা ফেরত দেওয়া হয় না।

বিল পরিশোধ

  • ক্যাশ ও কার্ডের মাধ্যমে বিল পরিশোধের ব্যবস্থা রয়েছে
  • ভিসা কার্ড, মাষ্টার কার্ড এবং সকল ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ড গ্রহণযোগ্য

বিবিধ

  • স্বর্ণ বা অলংকার ক্রয় বা বন্ধক নেওয়া হয় না
  • স্বর্ণ/ হীরা বাদে অন্যান্য ধাতবের কোন গহনা তৈরী করা হয় না
  • শো-রুমটি শীতাতাপ নিয়ন্ত্রিত
  • নিজস্ব জেনারেটরের মাধ্যমে এসি এবং বিদ্যুৎ ব্যবস্থা সচল রাখা হয়
  • ক্রেতাদের বসার জন্য উন্নত ফোমের চেয়ার ও সোফা রয়েছে

ভেনাস জুয়েলার্স

প্রধান শো-রুমের ঠিকানা ও অবস্থান ও অন্যান্য শাখাসমূহ:

৩৩/বি, বায়তুল মোকাররম মার্কেট, প্রথম তলা, ঢাকা – ১,০০০।
ফোন: ৯৫৫৫৮৪৬, ৯৫৫৬৯১৯।

বায়তুল মোকাররম মসজিদের পশ্চিম গেট সংলগ্ন অলিম্পিয়া বেকারীর পাশের সিড়ি দিয়ে মার্কেটের দ্বিতীয় তলায় গেলেই এই জুয়েলার্স শপটির সন্ধান মিলবে।

এই জুয়েলার্স শপটির প্রধান শাখাসহ মোট ৫টি শোরুম রয়েছে। তন্মধ্যে বায়তুল মোকাররম মার্কেটে ২টি, ইষ্টার্ন প্লাজার লেভেল – ৪ এ ১টি, বসুন্ধরা সিটির লেভেল – ৫ এ ১টি এবং গুলশান নাভানা টাওয়ারের লেভেল – ৪ এ ১টি শাখা রয়েছে।

যে সকল অলংকার পাওয়া যায়

এই জুয়েলার্স শপটিতে সোনা, রূপা, হীরা, হোয়াইট গোল্ড, কালার স্টোন (রত্ন পাথর) প্রভৃতি ধাতব পদার্থ দ্বারা তৈরী ক্যারেট এবং অঙ্গভিত্তিক বিভিন্ন অলংকার পাওয়া যায়। এগুলোর বিবরণসহ মূল্য নিম্নের ছকে দেওয়া হলো।

ক্যারেট ভিত্তিক সোনার মূল্য

এখানে বিভিন্ন ক্যারেটের গহণা পাওয়া যায়। যেমন – ২২ ক্যারেট, ২১ ক্যারেট ও ১৮ ক্যারেট। ক্যারেট ভিত্তিক স্বর্ণের মূল্যের তারতম্য রয়েছে।

২২ ক্যারেট (প্রতি ভরি)———–৫৬,১০০ টাকা
২১ ক্যারেট (প্রতি ভরি)———–৫৩,৬০০ টাকা
১৮ ক্যারেট (প্রতি ভরি)———-৪৬,০০০ টাকা
সনাতন (প্রতি ভরি)————-৩৫,০০০ টাকা

অলংকার ফেরৎ, পরিবর্তন, পুন: ক্রয় ও বন্ধক

এই জুয়েলার্স শপটিতে ক্রয়কৃত অলংকার ফেরৎ দেওয়ার ও পরিবর্তনের ব্যবস্থা রয়েছে। ফেরৎ এর ক্ষেত্রে মোট মূল্যের ২০% এবং পরিবর্তনের ক্ষেত্রে ১০% টাকা কেটে রাখা হয়। তবে সেক্ষেত্রে ক্রয়ের তারিখ থেকে সর্বোচ্চ পরবর্তী ৭ দিনের মধ্যে যোগাযোগ করতে হবে। এছাড়া এই জুয়েলার্স শপটি তাদের দোকান থেকে ক্রয়কৃত অলংকার পুন:ক্রয় করে থাকে। প্রতি ভরি পুরাতন সোনার মূল্য ৩৫,০০০ টাকা। উল্লেখ্য এখানে সোনা বন্ধক রাখার কোন ব্যবস্থা নেই।

 অগ্রীম অর্ডার প্রক্রিয়া

এখানে অগ্রীম অর্ডারের ভিত্তিতে অলংকার সরবরাহের ব্যবস্থা রয়েছে। সেক্ষেত্রে ভরি প্রতি ২,৫০০ টাকা থেকে ৩,০০০ টাকা মজুরী প্রদান করতে হয়।  সাধারণত ডেলিভারী তারিখের ৭ থেকে ১০ দিন পূর্বে অর্ডার প্রদান করতে হয়।

অলংকার পরীক্ষা

এই জুয়েলার্স শপটিতে সোনার মান পরীক্ষা করার সুব্যবস্থা রয়েছে। সাধরাণত কষ্টি পাথর, সালফিউরিক এসিড, চুনাপাথর এর ছাই প্রভৃতি দ্বারা সোনার মান পরীক্ষা করা হয়। এছাড়া হীরা পরীক্ষা করার জন্য ডায়মন্ড টেস্টার রয়েছে।  সোনা ও হীরার মান যাচাই করার জন্য আলাদা কোন চার্জ প্রদান করতে হয় না।

অলংকার মেরামত ও ওয়াশ

এখানে অলংকার মেরামত ও ওয়াশ করার ব্যবস্থা রয়েছে। প্রতি ভরি অলংকার ওয়াশ করতে ৩০০ টাকা এবং ঝালাই করতে সাধারণত ৫০০ টাকা চার্জ নিয়ে থাকে।

বিল পরিশোধ প্রক্রিয়া

এই জুয়েলার্স শপটিতে ক্যাশের পাশাপাশি ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে বিল পরিশোধের ব্যবস্থা রয়েছে। তবে সেক্ষেত্রে শুধুমাত্র ভিসা কার্ড গ্রহণযোগ্য।

খোলা-বন্ধের সময়সূচী

এই জুয়েলার্স শপটি শুক্রবার সাপ্তাহিক বন্ধ থাকে। সপ্তাহের অন্যান্য দিন সকাল ১০.০০ টা থেকে সন্ধ্যা ৭.০০ টা পর্যন্ত খোলা থাকে।

গিফট বক্স সুবিধা

এই জুয়েলার্স প্রতিষ্ঠানটি বিভিন্ন অনুষ্ঠানে বা বিশেষ কাউকে উপহার দেওয়ার জন্য ক্রয়কৃত অলংকারের গিফট বক্স তৈরী ও রেপিং করে থাকে। এক্ষেত্রে ২০০ টাকা চার্জ প্রদান করতে হয়।

বিবিধ

  • এই জুয়েলার্স শপটি শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ও নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহের জন্য নিজস্ব জেনারেটর রয়েছে।
  • এই জুয়েলার্সের সকল অলংকারের ক্ষেত্রে গ্যারান্টি ও ওয়ারেন্টির ব্যবস্থা রয়েছে।

 

জুয়েলারি

সৃষ্টির শুরু থেকে এবং এই উপমহাদেশে মোগল আমলে রাজা–বাদশা, রাণী এবং তাদের পাইক-পেয়াদারা তাদের সৌন্দর্য বর্ধন ও বিলাসের জন্য বিভিন্ন ধরনের জুয়েলারী অলংকার ব্যবহার করত। কিন্তু কালের বিবর্তনে সেই সকল রাজা-বাদাশারা না থাকলেও অলংকার ব্যবহারের রীতি বর্তমান আধুনিক যুগেও ব্যাপকহারে বৃদ্ধি পেয়েছে। সেই সময়ে নারী-পুরুষ সমানতালে এসব অলংকার ব্যবহার করলেও বর্তমান কম্পিউটারের যুগে শুধুমাত্র নারীদের ক্ষেত্রে অলংকার ব্যবহারের প্রচলন বেশী লক্ষ করা যায়। আর বাংলার নারীদের নিকট সোনার অলংকার সৌন্দর্যবর্ধন ও আর্থিক সুরক্ষার ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য স্থান দখল করে আছে। এসকল অলংকার আমাদের সরবরাহ করে থাকে বিভিন্ন জুয়েলার্স শিল্প প্রতিষ্ঠান।
আর এদেশের জুয়েলারী শিল্পের প্রথম শ্রেণীর কিছু জুয়েলারী প্রতিষ্ঠানগুলোর  তথ্য  নিচে দেওয়া  হচ্ছে।

১।ভেনাস জুয়েলার্স
২।আমিন জুয়েলার্স
৩।গীতাঞ্জলী জুয়েলার্স
৪।ডায়া গোল্ড জুয়েলারী

 

 

সূত্রঃ অনলাইন-ঢাকা.কম